হাই-হিল পরার ক্ষতিকর দিকসমূহ

আধুনিক সমাজে নারীদের রূপচর্চার অন্যতম প্রধান আকর্ষণ হয়ে দাঁড়িয়েছে হাই হিল এর ব্যবহার। হাই হিলকে তারা বর্তমান সময়ে ট্রেন্ড হিসেবে গ্রহণ করে নিয়েছে। একটু ফ্যাশনেবল এবং স্টাইলিশ দেখাতেই মূলত হাইহিল এর ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

তবে হাইহিল ব্যবহারের ফলে নিজেদের অজান্তেই যে কি পরিমান ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন তা সম্পর্কে অনেকেই অবগত নন। একটু ফ্যাশনেবল এবং স্টাইলিশ লুক এর জন্য আপনি বর্তমানে হাই হিল ব্যবহার করে আসলেও সামনের দিন গুলোতপ আপনাকে পঙ্গুত্ব বরণ করে নিতে হতে পারে।

হাই-হিল
হ্যাঁ বন্ধুরা হাইহিলের ব্যবহার আপনাদের জন্য অত্যন্ত ক্ষতির কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে। তাহলে চলুন দেখে নেয়া যাক হাইহিল ব্যাবহারের অত্যন্ত ক্ষতিকারক দিক সমূহ।

হাই হিল কি?
পায়ে পরিধানের জুতাই গোড়ালির দিকে স্বাভাবিকের চেয়ে উচ্চতা সম্পন্ন হিলকে মূলত হাই হিল বলা হয়।হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের এক গবেষণায় দেখা গেছে, স্বাভাবিক উচ্চতার চেয়ে মাত্র পাঁচ সেন্টিমিটার উঁচু হিল পড়লেও পায়ের হাঁটুতে 23% পরিমাণ বেশি চাপ বেড়ে যায়।। তাই হাই-হিল পরিহার করুন।

উঁচু হিল / হাই-হিল পরার ক্ষতিকর দিকসমূহ
হাই হিল হাঁটুর জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর

হাই হিল বা উঁচু হিল পরিধান করলে হাটুর পেশিতে এবং হাড়ে অতিরিক্ত চাপ পড়ে।বেশিদিন হাঁটুতে অতিরিক্ত চাপ পড়ার কারণে অনেকের অস্টিওআর্থ্রাইটিস হতে পারে। হাই হিল পরা মেয়েদের এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার হার অনেক বেশি। হাইহিলের অতিরিক্ত ব্যবহারে হাঁটু অচল করে দিতে পারে।

হাই-হিলে-মেয়েদের-যত-ক্ষতি
মাংসপেশীর ক্ষতি
হাইহিল বা উঁচু হিলের ব্যবহারের ফলে মাংসপেশিতে অতিরিক্ত চাপ পড়ে। কারণ হাইহিলের কারণে স্বাভাবিকের চেয়ে মাংসপেশিগুলো উঁচু হয়ে থাকে। এর ফলে সৃষ্টি হয় মাংসপেশির ব্যথা।

মাংসপেশীর-ক্ষতি
এমন কি মাংসপেশিতে সাইটিকা ও অন্যান্য জটিলতা দেখা দিতে পারে।

হাইহিল ঘাড়ে ব্যথার কারণ হতে পারে
হাইহিলের ক্ষতিকারক দিক শুধুমাত্র পায়ে এবং হাটুতে সীমাবদ্ধ থাকেনা। হিলের ব্যবহারের ফলে ঘাড়ের স্বাভাবিক অবস্থান আরো উঁচুতে চলে যায় এবং এর ফলে ঘাডের পেশিতে এবং হাড়ে প্রভাব পড়ে। ফলে ঘাড়ে ব্যথা এবং বিভিন্ন অসুবিধা হতে পারে।

হাইহিল-ঘাড়ে-ব্যথার-কারণ-হতে-পারে
অতিরিক্ত হাইহিলের ব্যবহারের ফলে ঠোঁটের স্বাভাবিক অবস্থান পরিবর্তন হয়ে যায়।ওয়াশিংটন পোস্ট-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হাই হিল দীর্ঘদিন পরার কারণে পায়ের হাড় নাজুক হয়ে যায়৷ হাড়ে চিড় ধরে, এমনকি কখনো কখনো তা ভেঙেও যায়৷

মেরুদন্ড বেঁকে যায়
হাই হিল ব্যাবহারের বিভিন্ন ক্ষতিকারক দিক সমূহের মধ্যে সবচেয়ে ক্ষতিকারক বিষয় হচ্ছে অতিরিক্ত হাইহিলের ব্যবহারের ফলে মেরুদন্ড বেকে যায়। এছাডাও মেরুদন্ডে বিভিন্ন ধরনের জটিল ও কঠিন রোগের সংক্রমণ হতে পারে।

মেরুদন্ড-বেঁকে-যায়
গবেষণায় দেখা গেছে অতিরিক্ত হাই হিল পরলে মেরুদন্ডের আকৃতি পাল্টে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

রক্তনালীর সংকোচন
উঁচু হিল বা হাই হিল এর অতিরিক্ত ব্যবহারের ফলে মাংসপেশিতে বেশি প্রেসার পড়ার কারণে রক্তনালীগুলো সংকুচিত হয়ে যায়। যার ফলে পায়ের স্বাভাবিক রক্ত প্রবাহ কমে যায়। হাই হিল ব্যবহারের ফলে রক্তনালীগুলো ছিড়ে যেতে পারে। ফলে হাইহিলের ব্যবহারে আপনার জীবনে পঙ্গুত্ব নিয়ে আসতে পারে।

জয়েন্টে ব্যথা
হাইহিল বা উঁচু হিলের ব্যবহারের ফলে জয়েন্ট সমূহ অতিরিক্ত উচ্চতায় থাকে বলে বিভিন্ন ধরনের ব্যথা অনুভূত হয়।

এই সমস্ত ব্যথা দীর্ঘ সময় ধরে হতে থাকলে পরবর্তীতে হাঁটাচলায় সমস্যা হয়।

ব্যাক পেইন
হাইহিল বা উঁচু হিলের অন্যতম প্রধান ক্ষতিকারক বিষয় হচ্ছে এটি ব্যাকপেইনের কারণ হয়ে দাঁড়ায়। হাইহিলের প্রভাবে কোমর স্বাভাবিকের চেয়ে উঁচু অবস্থানে থাকায় কোমরে প্রচুর পরিমাণ চাপ পড়ে।

ব্যাক-পেইন
যার ফলে ব্যাকপেইনের সৃষ্টি হয়।অনেক সময় এ ব্যাক পেইন আবার অস্টিপোরোসিসের কারণ হয়ে দাঁড়ায়।

হাইহিলের কারণে হাড়ের ক্ষয় হয়ে যায়
হাই হিল ব্যবহারের ফলে শরীরের সমস্ত ভার পায়ের গোড়ালি এবং পাতার ওপর চলে আসে। যার ফলে গোড়ালি এবং পায়ের পাতার হারে অতিরিক্ত চাপ পড়ে হাড় ক্ষয় হওয়া শুরু করে।

হাইহিলের-কারণে-হাড়ের-ক্ষয়-হয়ে-যায়
উঁচু হিল ব্যাবহারের ফলে এ ধরনের হাড়ের ক্ষয়ে যাওয়া আপনার পঙ্গুত্বের কারণ হতে পারে।

পায়ের পাতা শক্ত হয়ে যায়
উঁচু হিল বা হাইহিল ব্যবহারের ফলে শরীরের সমস্ত ভার পায়ের পাতার উপর চলে আসে তাই পায়ের পাতা স্বাভাবিকের চেয়ে শক্ত হয়ে যায়। এর ফলে পায়ের পাতার রক্তসঞ্চালন ক্ষমতা কমে যায়।

গোড়ালির সমস্যা

হাই হিল ব্যবহারের ফলে পায়ের পাতা এবং গোড়ালির স্বাভাবিক অবস্থান পরিবর্তন হয়ে যায় যার ফলে গোড়ালির অস্থিসন্ধিতে শরীরের সমস্ত ভার এসে পড়ে। এর ফলে পায়ের গোড়ালিতে বিভিন্ন ধরনের সমস্যা দেখা দেয়।

হাইহিলের ক্ষতিকারক দিক থেকে নিজেকে বাঁচিয়ে রাখতে যে ধরনের জুতা পরিধান করবেন

  • হিলের উচ্চতা সর্বোচ্চ 2 ইঞ্চি এর মধ্যে রাখবেন।
  • তলা বাঁকানো নয় অর্থাৎ সমতল কেমন ধরনের জুতা পছন্দ করুন।
  • হিল কে প্রসারিত রাখুন।
  • আপনার পায়ের জন্য আরামদায়ক জুতা নির্বাচন করুন।
  • বিভিন্ন সময় ভিন্ন ভিন্ন ধরনের জুতা পরিধান করুন।

হাইহিল আপনার শরীর এবং পায়ের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকারক। ক্ষনিকের সৌন্দর্য এবং স্টাইলের জন্য নিজেকে পঙ্গুত্বের হাতে সপে দিবেন না। আরামদায়ক জুতা পরিধান করুন সুস্থ, স্বাভাবিক সুন্দর জীবনযাপন করুন।