ফড়িং মিডিয়া – অনলাইন ডেস্ক: নারায়নগঞ্জ মেঘনা ঘাট থেকে ছিনতাই হওয়া ট্রাক ভর্তি ৩শ’ ২০ বস্তা চিনি চাঁদপুরের পালবাজার ও পুরাণবাজার থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। ২১ এপ্রিল শুক্রবার দিনভর চাঁদপুর মডেল থানা ও পুরাণবাজার ফাঁড়ি পুলিশের সহযোগিতায় নারায়নগঞ্জ সোনার গাঁও থানার উপ-পরিদর্শক তানভীর সংঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে চিনিগুলো উদ্ধার করে। এই ঘটনায় চাঁদপুরের ফয়সাল পাটওয়ারী নামে একজনকে আটক করা হয়েছে। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ ছিনতাই হওয়া চিনি উদ্ধার করে।

চাঁদপুর মডেল থানা ও পুরাণবাজার পুলিশ ফঁাঁড়ি সূত্রে জানা যায়, গত ১১ এপ্রিল নারায়নগঞ্জ মেঘনা ঘাট থেকে ফ্রেশ কোম্পানী থেকে ক্রয়কৃত ডিউর ৩শ’ ২০ বস্তা ফ্রেশ চিনির একটি চালান দিনাজপুরের খাজা আজমীর স্টোর নামে ডেলিভারি দেয়া হয়। পরে ট্রাক চালক রানা চিনি ভর্তি সেই ট্রাকটি (ঢাকা মেট্রো ট- ১১৭৯৭৯) দিনাজপুর বড় বন্দর এলাকায় না নিয়ে চাঁদপুরে নিয়ে আসে।

এরপর সে গোপনে দালাল ইব্রাহিমের মাধ্যমে শহরের পালবাজার ও পুরাণবাজারের কয়েকজন ব্যবসায়ীর কাছে চিনিগুলো বিক্রি করে দেয়। এই ঘটনায় ১৩ এপ্রিল নারায়নগঞ্জ কাঁচপুরের সুমন ট্রান্সপোর্ট সোনারগাঁও থানায় ট্রাক চালক রানা, হেলপার ফারুকসহ ৫ জনকে আসামী করে একটি ছিনতাই মামলা দায়ের করা হয়। যার মামলা নং-৩৮। ছিনতাই হওয়া চিনির মূল্য ৯লাখ ৫৮ হাজার টাকা।

এই মামলার সূত্র ধরেই সোনারগাঁও থানার উপ-পরিদর্শক তানভীর সংঙ্গীয় ফোস নিয়ে গত তিনদিন ধরে চাঁদপুরে এসে আটক আসামীকে নিয়ে চিনির সন্ধানে চল্লাশি করে। চাঁদপুর মডেল থানা পুলিশের সহযোগিতায় আটক ফয়সালের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে একের পর এক অভিযান চালায়। এতে প্রথমে পালবাজার ছালামত খান স্টোর থেকে ৪০ বস্তা এবং পুরাণবাজার ফাঁড়ি এসআই জাহাঙ্গির আলমের সহযোগিতায় আল্লাহর দান স্টোর থেকে ৪০ বস্তা, ভাই ভাই স্টোর থেকে ৫০ ও বাদশা স্টোর থেকে ৪০ বস্তা চিনি উদ্ধার করা হয়।

দিনাজপুরের ব্যবসায়ী রাজকুমার সাহা জানায়, মেঘনা ঘাট থেকে দিনাজপুর যাওয়ার পথে ট্রাক চালক ও হেলপারসহ ট্রাকভর্তি চিনিগুলো নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে সোনারগাঁও থানায় একটি ছিনতাই মামলা দায়ের করা হয়। ছিনতাই চক্রের কয়েকজনকে আটক করা হয়েছে।

মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই (উপ-পরিদর্শক) তানভির আহমেদ জানায়, চিনির বস্তা গুলো বিভিন্ন স্থানে ছিনতাই চক্রের সদস্যরা বিক্রয় করেছে। এই ঘটনায় কয়েকজনকে আটকও করা হয়েছে। আটককৃতদের দেয়া তথ্যের ভিক্তিতে চাঁদপুরের পুলিশের সহযোগিতায় চিনিগুলো উদ্ধার করা হয়েছে।